1. faysal.rakib2020@gmail.com : admin :
  2. ukbanglatv21@gmail.com : Kawsar Ahmed : Kawsar Ahmed
এখন চারিদিকে অন্ধকার: রিজভী - বাংলার কন্ঠস্বর ।। Banglar Konthosor
মঙ্গলবার, ২০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০:৪৪ অপরাহ্ন

এখন চারিদিকে অন্ধকার: রিজভী

  • প্রকাশিত :প্রকাশিত : বুধবার, ৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ৭০ 0 বার সংবাদি দেখেছে
নিজস্ব প্রতিবেদক // বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, আমরা এমন একটি সময়ে এসেছি যখন চারিদিকে অন্ধকার। কারও কোনো কথা বলার অধিকার নেই। দেশে যে অন্যায়গুলো হচ্ছে সে গুলোর প্রতিবাদ যারা করছে তাদের উপর নির্মমভাবে নির্যাতন করা হচ্ছে। সভা সমাবেশ করা স্বার্বজনীন গণতান্ত্রিক অধিকার কিন্তু সমাবেশ যারা করছে তাদেরকর নিষ্ঠুরভাবে দমন করা হচ্ছে।

আপনারা জানেন জ্বালানি তেল সহ-নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যসামগ্রী বৃদ্ধির প্রতিবাদে সারাদেশে আমাদের যে কর্মসূচি চলছে সেগুলোতে সরকারের আইনশৃঙ্খলা বাহিনী নির্মম নির্যাতন চালাচ্ছে প্রতিমুহূর্তে। তাদের আক্রমণে কেউ কেউ পঙ্গুত্ব বরণ করছেন, কেউ চোখ হারাচ্ছেন। তিনজনের জীবনও চলে গেছে।

বুধবার শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের মাজারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে তিনি এসব কথা বলেন। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ মহিলা দলের নেতৃবৃন্দকে নিয় ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।

প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর প্রসঙ্গে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী কি দেনদরবার করতে গেছেন? এই দেনদরকার করতে গিয়ে বাংলাদেশের স্বার্বভৌমত্ব কতটুকু বিক্রি করছেন সেটাই এখন দেখার বিষয়। জনগণ চেয়ে আছেন প্রধানমন্ত্রী সেখানে গিয়ে কী করছেন? কতটুকু স্বার্বভৌমত্ব বিক্রি করে নিজের অবৈধ ক্ষমতা টিকে রাখার চেষ্টা করছেন।

বিএনপির এই মুখপাত্র বলেন, নিত্যপ্রায়োজনীয় দ্রব্যসামগ্রীর দাম প্রতিমুহূর্তে বৃদ্ধি করা হচ্ছে। গতকালও ডিমের দাম আরও বৃদ্ধি করা হয়েছে। বিরোধীদল হিসেবে আমরা যখন প্রতিবাদ করছি তখনই সরকারের আইনশৃঙ্খলা বাহিনী আমাদের উপর চন্ডমূর্তী নিয়ে আবির্ভত হচ্ছে। আজকে দেশের মানুষকে অনাহারে রেখে, দুর্ভিক্ষের মধ্যে ফেলে রেখে অবৈধ প্রধানমন্ত্রী বিদেশ সফরে গেছেন।

প্রধানমন্ত্রীকে প্রশ্ন রেখে রিজভী বলেন, আপনি প্রধানমন্ত্রী ওখানে (ভারত) গিয়ে তো তিস্তা চুক্তি করতে পারেননি। এখনও আমাদের যে ন্যায্য পাওয়ানা আমাদের অভিন্ন নদীগুলো সেগুলোর আপনি একটিও আদায় করতে পারেননি। আজকে জোড় করে অবৈধভাবে ক্ষমতায় আছেন অথচ আমাদের ন্যায্য হিস্যা একবারও আদায় করতে পারেননি।

বিএনপি নিজেরাই দেশকে অস্থিতিশীল করতে সারাদেশে হামলা করছে সরকার দলীয় নেতাদের এমন বক্তব্যের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এটা যুগে যুগে একদলীয় কর্তৃত্ববাদী শাসকরা করে আসছেন। গণতান্ত্রিক শক্তির উপর তারা বুলডোজার স্টিম রোলার চালিয়ে তারাই আবার মিথ্যা স্টেটমেন্ট দেন।

মিয়ানমারের বিষয়ে জানতে চাইলে রিজভী আরও বলেন, এটা তো নির্বাচিত সরকার নয় তাদের গণভিত্তি নাই বলেই তাদের পরাষ্ট্রনীতি অত্যন্ত দূর্বল এবং নতজানু। দেশের এমন পরিস্থিতিতে একটা যে শক্ত প্রতিবাদের ভাষা সেটাও সরকার দিতে পারছে না কারণ একদিকে তাদের গণভিত্তি নেই অন্যদিকে অন্যান্য দেশের সমর্থনে তাদের টিকে থাকতে হচ্ছে। এই কারণে নতজানু হয়ে তাদের থাকতে হচ্ছে।

এ সময় মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাস, সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক হেলেন জেরিন খান, দক্ষিণের আহবায়ক রুমা আক্তার ও সদস্য সচিব নাসিমা আক্তার কেয়া প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

‍এই ক্যাটাগরির ‍আরো সংবাদ