1. faysal.rakib2020@gmail.com : admin :
  2. ukbanglatv21@gmail.com : Kawsar Ahmed : Kawsar Ahmed
সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য - বাংলার কন্ঠস্বর ।। Banglar Konthosor
শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ০৬:৫৭ অপরাহ্ন

সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য

  • প্রকাশিত :প্রকাশিত : শনিবার, ৮ অক্টোবর, ২০২২
  • ৮১ 0 বার সংবাদি দেখেছে

নিজস্ব প্রতিবেদক // প্রজনন মৌসুমে মা ইলিশ সংরক্ষণের লক্ষ্যে বৃহস্পতিবার রাত থেকে শুরু হয়েছে ২২ দিনের সরকারি নিষেধাজ্ঞা। এ সময় ইলিশ ধরা, বিক্রি, মজুদ, বাজারজাতকরণ ও পরিবহন নিষিদ্ধ করেছে সরকার। কিন্তু নিষেধাজ্ঞা শুরুর পর গতকাল প্রথম দিনই ইলিশ আহরণ, পরিবহন ও বিক্রির দায়ে সারা দেশে বিভিন্ন জায়গায় পরিচালনা করা হয় ভ্রাম্যমাণ আদালত। আমাদের প্রতিনিধিদের পাঠানো প্রতিবেদন-

কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি : শুক্রবার সকালে উপজেলার কলাতিয়া বাজার, আটি বাজার, খোলামোড়া বাজারসহ জিনজিরা ও কোনাখোলা বাজারে সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শেখ মো. আলাউল ইসলামের নেতৃত্বে অভিযান পরিচালিত হয়।

অভিযানে সিনিয়র উপজেলা মৎস্য অফিসার মো. সেলিম রেজা উপস্থিত ছিলেন। এ সময় ২৫ কেজি ইলিশ, ৮০ কেজি চিংড়ি এবং ২০০ কেজি শিং ও মাগুর মাছ জব্দ করা হয়। পরে জব্দকৃত ইলিশ মাছ এতিমখানায় বিতরণ করেন এবং জেলি মিশ্রিত চিংড়ি মাটিতে পুঁতে বিনষ্ট করা হয়। এ ছাড়া রং মিশ্রিত শিং মাছ বুড়িগঙ্গা নদীতে অবমুক্ত করা হয়।

বরিশাল ব্যুরো : বরিশালের হিজলায় নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে নদীতে ইলিশ শিকার করায় মা ইলিশ সংরক্ষণ অভিযানে ছয়জনকে আটক করেছে হিজলা নৌপুলিশ ইউনিট। এ সময় পাঁচ হাজার মিটার অবৈধ কারেন্ট জালও জব্দ করা হয়েছে।

শুক্রবার ভোররাতে এই অভিযান পরিচালনা করা হয়। আটককৃত ছয়জনকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে সোপর্দ করা হলে বিচারক চারজনকে এক বছর করে সশ্রম কারাদণ্ড ও দুজন অপ্রাপ্ত বয়স্ক হওয়া তাদের মুচলেকা রেখে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

হিজলা নৌপুলিশ ইউনিটের ইনচার্জ পরিদর্শক বিকাশ চন্দ্র দে জানান, রাত ১২টার পর থেকে মৎস্য কর্মকর্তা ও কোস্ট গার্ডের সমন্বয়ে অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় ছয়জনকে আটক করা হয়।

এদের মধ্যে হিজলা উপজেলার পূর্ব খাগেরচর এলাকার সাইফুল মল্লিক (৩০), নাজমুল শিকদার (২৫), নুরুল ইসলাম তালুকদার (২৭) ও চর বিশোরের কাওসার মোল্লাকে (২৫) এক বছর করে সশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ তারেক হাওলাদার।

হাতিয়া (নোয়াখালী) প্রতিনিধি: ইলিশ মাছ পরিবহনের অপরাধে নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ায় অভিযান চালিয়ে চার ব্যবসায়ীকে অর্থদণ্ড করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ সময় প্রায় ৩৫ কেজি মা ইলিশ জব্দ করা হয়।

শুক্রবার সকালে উপজেলার নলচিরা ঘাট এলাকায় এ অভিযান পরিচালনা করা হয়। জব্দকৃত মাছ বিভিন্ন এতিমখানায় বিতরণ করা হয়।

হাতিয়ার নলচিরা ঘাট হয়ে পূর্বে মজুদকৃত ৩৫ কেজি ইলিশ মাছ ট্রলারযোগে অন্যত্র নিয়ে যাওয়া হচ্ছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে নৌপুলিশের একটি দল অভিযান চালায়।

এ সময় ট্রলারে ওঠানোর সময় ৩৫ কেজি মাছসহ চারজনকে আটক করা হয়। পরবর্তীতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সেলিম হোসেনের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে আটককৃতদের পাঁচ হাজার টাকা অর্থদণ্ড ও জব্দকৃত মাছগুলো স্থানীয় এতিমখানায় বিতরণ করা হয়।

উল্লেখ্য, মা ইলিশ সংরক্ষণ অভিযান ও ইলিশের প্রধান প্রজনন মৌসুমে ইলিশের বংশ বৃদ্ধিতে সহায়তার লক্ষে সরকার ঘোষণা অনুযায়ী ৭ অক্টোবর বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকে ২২ দিনের নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়েছে। আগামী ২৮ অক্টোবর পর্যন্ত এ নিষেধাজ্ঞা চলবে।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

‍এই ক্যাটাগরির ‍আরো সংবাদ