1. faysal.rakib2020@gmail.com : admin :
  2. ukbanglatv21@gmail.com : Kawsar Ahmed : Kawsar Ahmed
নগদ নিয়ে এলো ইসলামিক মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট - বাংলার কন্ঠস্বর ।। Banglar Konthosor
শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ০২:৪৪ পূর্বাহ্ন

নগদ নিয়ে এলো ইসলামিক মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট

  • প্রকাশিত :প্রকাশিত : সোমবার, ২৯ জানুয়ারি, ২০২৪
  • ৪৯ 0 বার সংবাদি দেখেছে

মুসলমান ব্যবহারকারীদের লেনদেন পুরোপুরি ইসলামি শরিয়াহভিত্তিক করার লক্ষ্যে মোবাইল আর্থিক সেবা নগদ নিয়ে এলো ইসলামিক মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট। ব্যবসায়ীরা এই অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে লেনদেন করলে সাধারণ গ্রাহক ও ব্যবসায়ীদের অর্থ সম্পূর্ণ শরিয়াহসম্মতভাবে লেনদেন নিশ্চয়তা পাবেন।

সেবাটি চালুর মাত্র তিন দিনেই দারুণ সাড়া পেয়েছে নগদের ইসলামিক মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট। দেশের প্রথম ও একমাত্র মোবাইল সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান হিসেবে আলাদা ইসলামিক এমএফএস চালু করে নগদ। প্রতিষ্ঠানটির ইসলামিক অ্যাকাউন্ট সম্পূর্ণ শরিয়াহ পর্যবেক্ষক কমিটির তত্ত্বাবধানে পরিচালিত হয়ে আসছে। ‘নগদ ইসলামিক’ মোবাইল অ্যাকাউন্টটির মাধ্যমে গ্রাহকেরা খুব সহজেই সুদমুক্ত ও শরিয়াহসম্মত উপায়ে নিজস্ব তহবিল পরিচালনা করতে পারছেন, যা তাঁদের ধর্মীয় মূল্যবোধ ও বিধানকে সংরক্ষণ করছে।

এই অ্যাকাউন্টের অর্থ সবসময়ই কয়েকটি বাণিজ্যিক ব্যাংকের ইসলামি ব্যাংকিংয়ে রক্ষিত থাকে। ফলে গ্রাহককে কোনোরকম সুদ গ্রহণ বা ইসলামে অননুমোদিত লেনদেন করতে হয় না। তবে এতদিন ইসলামিক কোনো মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট না থাকায় ব্যবহারকারীরা ধর্মীয় উপায়ে পেমেন্ট করতে একটু সমস্যার মধ্যে পড়তেন। এবার ইসলামিক মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট এনে লেনদেনের আরেকটি মাইলফলক স্পর্শ করল দেশের অন্যতম জনপ্রিয় মোবাইল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিস নগদ।

যেকোনো ব্যবসায়ী খুব সহজে নগদের নির্দিষ্ট একটি লিংকে (https://nagadislamic.com.bd/en/islamic-merchant-onboarding-form/) গিয়ে তথ্য প্রদান করে মার্চেন্ট হওয়ার আবেদন করতে পারবেন। তার তথ্য ও ট্রেড লাইসেন্স যাচাই করে নগদ কর্তৃপক্ষ অ্যাকাউন্ট প্রদান করবেন। একটি ট্রেড লাইসেন্সের বিপরীতে একটিই মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট করা যাবে। খুব দ্রুতই সাধারণ মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট থেকে ইসলামিক মার্চেন্ট অ্যাকাউন্টে পরিবর্তনের পদ্ধতিও নিয়ে আসবে নগদ।

ক্রেতা যখন কেনাকাটার পেমেন্ট সম্পন্ন করবেন, তখন তা সরাসরি নগদ ইসলামিকের একটি শরিয়াহসম্মত ইসলামিক ব্যাংক অ্যাকাউন্ট-এ জমা হয়। তারপর তা মার্চেন্টের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট-এ পাঠানো হয়। ইসলামিক মার্চেন্টের পুরো ফান্ড ইসলামিক ও শরিয়াহসম্মত উপায়ে নিয়ন্ত্রণ করা হয়।  নগদ ইসলামিকের সকল কার্যক্রম শরিয়াহ সুপারভাইজরি কমিটির সরাসরি তত্ত্বাবধানে পরিচালিত হয়ে আসছে।

ইসলামি শরিয়াহভিত্তিক মার্চেন্ট অ্যাকাউন্ট চালুর বিষয়ে নগদ-এর নির্বাহী পরিচালক ও শরিয়াহ সুপারভাইজরি কমিটির সদস্য মোহাম্মদ আমিনুল হক বলেন, ‘আমরা চাই প্রত্যেক মুসলিম যেন ইসলামি শরিয়াহসম্মত জীবনযাপন করতে পারেন। আমাদের ধর্মে সুদকে হারাম করা হয়েছে। তাই আমরা এমনভাবে এই অ্যাকাউন্টগুলো পরিচালনা করি, যা আমাদের ধর্মীয় অনুশাসন অনুযায়ী চলতে সহায়তা করবে।’

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Comments are closed.

‍এই ক্যাটাগরির ‍আরো সংবাদ