1. faysal.rakib2020@gmail.com : admin :
  2. ukbanglatv21@gmail.com : Kawsar Ahmed : Kawsar Ahmed
সাভারে চাকরির নামে প্রতারণার ফাঁদ, আটক ২ - বাংলার কন্ঠস্বর ।। Banglar Konthosor
শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১০:৪৩ অপরাহ্ন

সাভারে চাকরির নামে প্রতারণার ফাঁদ, আটক ২

  • প্রকাশিত :প্রকাশিত : রবিবার, ১৭ মার্চ, ২০২৪
  • ৩৩ 0 বার সংবাদি দেখেছে

খোকন হাওলাদার, সাভার (ঢাকা) প্রতিনিধি // সাভারের আশুলিয়ায় দীর্ঘদিন ধরে চাকরি দেয়ার নামে প্রতারণার মাধ্যমে শত শত যুবকের অর্থ হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগে প্রতিষ্ঠানটির দুইজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় ভুক্তভোগীরা থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।

শনিবার (১৬ মার্চ) আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক নূর খান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

গ্রেফতার আসামিরা হলেন, পাবনা জেলার চাটমোহর থানার ঝাকরা গ্রামের নিজাম উদ্দিনের ছেলে মেহেদী হাসান নাহিদ (২৪) ও একই এলাকার নূর মোহাম্মদের ছেলে মামুন উর রহমান (২৪)।

শুক্রবার গ্রেফতার দুই আসামিকে পাঁচ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠায় আশুলিয়া থানা পুলিশ।

একই দিন বিকেলে আশুলিয়ার পল্লীবিদ্যুত পূর্ব ডেন্ডাবর এলাকা থেকে তাদের আটক করে পুলিশ। পরে আশুলিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেন ভুক্তভোগীরা।

এছাড়া মামলার অন্যতম আসামি ও প্রতারক চক্রটির হোতা ফরিদপুর জেলার আলফাডাঙ্গার রফিকুল ইসলামের ছেলে তরিকুল ইসলাম (৪০), একই জেলরা জুয়েল মীর ওরফে রাকিব (৩০), কুষ্টিয়া জেলার মো. তুহিন, বগুড়া জেলার মো. রায়হান (৩৫) ও নওগাঁ জেলার বাপ্পী ইসলাম (২৫)।

ভুক্তভোগী রাকিব হাসান নামে গাইবান্ধার এক যুবক জানান, আশুলিয়ার পল্লীবিদ্যুত এলাকায় ঈদগাহ মাঠ সংলগ্ন আব্দুল মজিদ মুন্সী ফিউচার টাওয়ারের তৃতীয় তলায় ডিএক্সএন ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড নামে একটি প্রতারক কোম্পানি আমাদের প্রায় অর্ধশত বেকার যুবককে চাকরি দেয়ার কথা বলে কয়েক লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। কিছুদিন পর কোম্পানি নাম পরিবর্তন করে বিএসএন গ্লোবাল লিমিটেড হয়ে যায়। এসময় কোম্পানির মালিকপক্ষের আমিনুল ইসলামের মাধ্যমে আমি এখানে চাকরির জন্য আসি। পরে ৯ জানুয়ারি আমাকে ওষুধ কোম্পানিতে চাকরি দেয়ার কথা বলে কোম্পানির আরেক প্রতারক রায়হান আমার কাছে সাড়ে ৪০ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়। একই ভাবে আমার বন্ধু আমির, মাহমুদুল ও আরমানের প্রত্যেকের কাছে সমপরিমাণ টাকা আদায় করে প্রতারকরা। চাকুরি নিতে আসা আমাদের এমন প্রায় অর্ধশত বেকারদের আলাদা বাসায় একরকম আটকে রেখে কোনরকম খাবার দিতো। প্রতিবাদ করলে নানা সময় আমাদের হুমকিসহ ভয়ভীতি প্রদর্শন করতো প্রতারক চক্রের সদস্যরা। পরে গতকাল বৃহস্পতিবার আমরা থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ দুইজনকে গ্রেফতার করে।

তিনি আরও জানান, মামলা দায়েরের পরপরেই শুক্রবার প্রতারক কোম্পানি তাদের অফিসের মালামালসহ ব্যানার সরিয়ে ফেলেছে। এর পরেই প্রতারকরা স্থানীয় প্রভাবশালীদোর মাধ্যমে আমাদের নানা হুমকি প্রদান করে আসছে। বিষয়টি আমি তাৎক্ষণিক পুলিশকে জানাই।

আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা নূর খান বলেন, চাকরি দেয়ার নামে অসহায় যুবকদের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নেয়া চক্রটির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়েছে। এঘটনায় প্রতারককে গ্রেফতারের পর রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে। চক্রটির অন্যতম হোতা প্রতারক তরিকুল ও জুয়েলসহ পলাতক বোশ কয়েকজনকে দ্রুত গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

উল্লেখ্য, গত ১৩ মার্চ আশুলিয়ার পল্লীবিদ্যুত এলাকার বিএসএন গ্লোবাল লিমিটেড কোম্পানির প্রতারণা নিয়ে একটি প্রতিবেদন সংবাদ সারাবেলায় প্রকাশিত হলে বিষয়টি নজরে আসে পুলিশের।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Comments are closed.

‍এই ক্যাটাগরির ‍আরো সংবাদ